তীব্র তাপপ্রবাহ: শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি ঘোষণাঃ তাপপ্রবাহের কারণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলছে না রোববার। আগামী বৃহস্পতিবার (২৫ এপ্রিল) পর্যন্ত বন্ধ ঘোষণা করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। শুক্র-শনিবার সাপ্তাহিক ছুটির কারণে ২৭ এপ্রিল পর্যন্ত বন্ধ থাকছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। আগামী ২৮ এপ্রিল খুলবে হাইস্কুল-কলেজ, মাদরাসা ও কারিগরি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। প্রাথমিক বিদ্যালয় ও ইবতেদায়ী মাদরাসাও খুলবে ২৮ এপ্রিল। শিক্ষা ও প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় এ তথ্য জানিয়েছে।

তীব্র তাপপ্রবাহ: শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি ঘোষণা
তীব্র তাপপ্রবাহ: শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি ঘোষণা

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের তথ্য ও জনসংযোগ  কর্মকর্তা এম এ খায়ের মন্ত্রণালয়ের ফেসবুক পেজে এক পোস্টের মাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

এদিকে মাউশির মহাপরিচালকের রুটিন দায়িত্বে থাকা অধ্যাপক শাহেদুল খবীর চৌধুরী এ সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে গণমাধ্যমকে বলেন, আবহাওয়া পরিস্থিতির অবনতি বা উন্নতির পরিপ্রেক্ষিতে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করা হবে।

এ বিষয়ে মাদরাসা শিক্ষা অধিদপ্তরের পক্ষ গণমাধ্যমকে জানানো হয়, মাউশির অধীন স্কুল ও কলেজগুলোর মতো তাদের অধীন মাদরাসাগুলোতেও ছুটি থাকবে। অর্থাৎ মাদরাসাগুলোও খুলবে ২৮ এপ্রিল।  তীব্র তাপপ্রবাহ: শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি ঘোষণা

দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বয়ে যাচ্ছে তাপপ্রবাহ। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বাড়তে থাকে গরমের তীব্রতা। তীব্র গরমে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে জনজীবন। দেশের ওপর দিয়ে বয়ে যাওয়া তাপপ্রবাহে গরম আরও বেড়ে যাওয়ার শঙ্কায় শুক্রবার তিন দিনের জন্য হিট অ্যালার্ট জারি করে আবহাওয়া অধিদপ্তর। এমন পরিস্থিতিতে আগামীকাল রোববার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার কথা ছিল।

তাপদাহ স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখার কথা আলোচনা হয় গত দুদিন ধরেই।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, চলমান তাপদাহে শিশু শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য ও সুরক্ষা বিবেচনায় আগামী ২১ থেকে ২৭ এপ্রিল পর্যন্ত সকল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, শিশু কল্যাণ ট্রাস্টের বিদ্যালয়গুলো ও উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা ব্যুরোর লার্নিং সেন্টারগুলো বন্ধ থাকবে। এর কিছুক্ষণ পরই একই কারণে সাতদিন দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখার সিদ্ধান্তের কথা জানায় মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতর।

রমজান, ঈদুল ফিতর, বৈশাখ ও গ্রীষ্মকালীন অবকাশ মিলিয়ে ২৬ দিন বন্ধ ছিল দেশের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। দীর্ঘদিন ছুটির পর আগামীকাল রোববার (২১ এপ্রিল) খোলার কথা ছিল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের। এদিকে দেশজুড়ে তীব্র তাপপ্রবাহে আবহাওয়া অধিদফত হিট অ্যালার্ট জারি করে রেখেছে। এ পরিস্থিতিতে স্কুলে হাজির থাকা নিয়ে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মধ্যে দুশ্চিন্তা দেখা দেয়। তাদের মতে, তীব্র তাপপ্রবাহে জ্বলছে দেশ। তাপপ্রবাহ থেকে তৈরি হওয়া গরমে শিক্ষার্থীরা স্কুলে অসুস্থ হয়ে পড়তে পারে।

এ বিষয়ে অভিভাবক ঐক্য ফোরামের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা জিয়াউল কবির দুলু সারাবাংলা বলেন, ‘দেশের বিভিন্ন জেলা ও অঞ্চলে হিট অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে। বড়দের প্রয়োজন ছাড়া বাইরে বের হতে নিষেধ করছে প্রশাসন। সেখানে শিশু শিক্ষার্থীদের বাইরে বের হওয়া তো আরও ঝুঁকির বিষয়। এ কারণে স্কুল-কলেজ খুললে অনেক শিশু অসুস্থ হয়ে পড়তে পারে। তাই দেশের সব স্কুল-কলেজ-মাদরাসা আগামী ৭ দিন বন্ধ রাখার সুপারিশ করেছি।

একদিকে তীব্র তাপপ্রবাহ অন্যদিকে অভিভাবকদের শঙ্কার পরিপ্রেক্ষিতে আরও সাতদিন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখার ঘোষণা দিয়েছে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়। প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, চলমান তাপদাহে শিশু শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য ও সুরক্ষা বিবেচনায় আগামী ২১ থেকে ২৭ এপ্রিল পর্যন্ত সব সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, শিশু কল্যাণ ট্রাস্টের বিদ্যালয় ও উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা ব্যুরোর লার্নিং সেন্টারগুলো বন্ধ থাকবে।

এরপরই সাতদিন দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের সিদ্ধান্তের কথা জানায় মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতরও (মাউশি)। প্রতিষ্ঠানটির ভারপ্রাপ্ত মহাপরিচালক শাহেদুল খবির চৌধুরী সারাবাংলাকে বলেন, ‘সিদ্ধান্ত নিয়েছি। তবে নির্দেশনা জারি করিনি এখনো। দ্রুত হয়ে যাবে।’

তিনি বলেন, ‘স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও আবহাওয়া অধিদফতরের সঙ্গে পরামর্শ করে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছুটি আজ শেষ হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু দেশে যে তাপদাহ চলছে, সেখানে স্বাস্থ্য ঝুঁকি এড়াতে সেই ছুটি আগামী ২৭ এপ্রিল শেষ হবে। ক্লাস শুরু হবে ২৮ এপ্রিল থেকে। তবে আবহাওয়ার যদি উন্নতি ঘটে তাহলে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান আগেও খুলতে পারে। আর এ পরিস্থিতি অব্যাহত তাহলে ছুটি আরও বাড়তে পারে। সব কিছু নির্ভর করছে আবহাওয়ার ওপরে।’

শিক্ষামন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী সারাবাংলাকে বলেন, ‘আমরা অলরেডি অর্ডার ইস্যু করেছি। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও আবহাওয়ার পূর্বাভাস অনুযায়ী দেশে তীব্র তাপদাহ বয়ে যাচ্ছে। তাই আগামী কয়েক দিনের জন্য প্রাথমিক ও মাধ্যমিক পর্যায়ে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান আপাতত বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত হয়েছে। তবে পরিস্থিতি পরিবর্তন হলে সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলে সিদ্ধান্ত পরিবর্তনও হতে পারে।’

প্রসঙ্গত, ছুটির তালিকা অনুযায়ী ১০ মার্চ থেকে প্রাথমিক, মাদরাসা এবং মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে প্রায় এক মাসের ছুটি শুরুর কথা ছিল। তবে শিখন ঘাটতি পূরণে প্রাথমিকে ১০ দিন খোলা রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। পাশাপাশি মাধ্যমিকেও ১৫ দিন কমিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করেছিল শিক্ষা মন্ত্রণালয়। পরে রোজার মধ্যেও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা রাখার বিষয়ে উচ্চ আদালতে রিট হলে আপিল বিভাগ মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ছুটি সমন্বয় করে রোজায় ১৫ দিন মাধ্যমিক বিদ্যালয় খোলা রাখার পক্ষে রায় দেন। সর্বশেষ গত ২৫ মার্চ থেকে ছুটি শুরু হয়ে তা ২০ এপ্রিল শেষ হয়ে রোববার ( ২১ এপ্রিল) থেকে ক্লাস শুরু হওয়ার কথা ছিল। যা তীব্র তাপদাহের কারণে আরও সাতদিন বাড়ানো হলো। ফলে নতুন ঘোষণা অনুযায়ী দেশের সব স্কুল-কলেজ ও মাদরাসা আগামী ২৮ এপ্রিল খুলবে।  তীব্র তাপপ্রবাহ: শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি ঘোষণা

এদিকে আবহাওয়ার পূর্বাভাস অনুযায়ী, আগামী দুই দিনে দেশের কোথাও কোথাও বৃষ্টির পূর্বাভাস থাকলেও অব্যাহত থাকতে পারে তাপপ্রবাহ। এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় চুয়াডাঙায় ৪১ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেল সিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে, যা দেশের সর্বোচ্চ। আর রাজধানী ঢাকায় তা ৩৮ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। এছাড়া রাজশাহী, মোংলা, ঈশ্বরদীতে ৪১ ডিগ্রি, যশোরে ৪১ দশমিক ২ ডিগ্রি, কুমারখালী ৪০ দশমিক ২ ডিগ্রি, খুলনা ও সাতক্ষীরায় ৪০ ডিগ্রি, মাদারীপুরে ৩৯ দশমিক ২ ডিগ্রি, গোপালগঞ্জে ৩৯ দশমিকক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। এছাড়া কমপক্ষে ১০ জেলার তাপমাত্রা ৩৮ ডিগ্রির ওপর দিয়ে বয়ে যাচ্ছে।

আরো দেখুনঃ শিক্ষকরা রাস্তায় নামবে-শনিবার ছুটি বাতিল হলে অধ্যক্ষ সেলিম ভূঁইয়া

Education Should not be Pressured on Children ।। লেখাপড়া নিয়ে শিশুদের ওপর চাপ সৃষ্টি করা যাবে না

বাস্তব জীবনী গর্ভনর বাংলাদেশ ব্যাংকের ড: আতিউর রহমানের

কাল স্কুল বন্ধ কিনা শুনানির পর বলা যাবে: এটর্নি জেনারেল 

ধারাবাহিক মূল্যায়ন শিগগিরই শুরু হচ্ছে ৩য় শ্রেণি পর্যন্ত

সূত্রঃ সারাবাংলা  ও  দৈনিক শিক্ষা 


Discover more from Education Site

Subscribe to get the latest posts to your email.

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Discover more from Education Site

Subscribe now to keep reading and get access to the full archive.

Continue reading